• শনিবার ( রাত ৩:০৬ )
  • ১৮ই নভেম্বর ২০১৭ ইং
  • ২৭শে সফর ১৪৩৯ হিজরী
  • ৪ঠা অগ্রহায়ণ ১৪২৪ বঙ্গাব্দ ( হেমন্তকাল )
MY SOFT IT

গুলিস্তানে আবার হকারদের সঙ্গে ব্যবসায়ীদের সংঘর্ষ

রাজধানীর গুলিস্তানে ঢাকা ট্রেড সেন্টারের (দক্ষিণ) বারান্দা ও সামনের ফুটপাতে দোকান বসানো নিয়ে হকার ও ব্যবসায়ীদের মধ্যে গতকাল শুক্রবার আবারও সংঘর্ষ হয়েছে। এতে পুলিশের মতিঝিল বিভাগের উপকমিশনারসহ অন্তত ২৫ জন আহত হয়েছেন। পুলিশ ট্রেড সেন্টারে অভিযান চালিয়ে দুই শতাধিক দোকানি ও শ্রমিককে আটক করেছে।
গত বৃহস্পতিবারের ঘটনায় পল্টন থানায় পরস্পরকে দায়ী করে মামলা করেছেন হকার ও ব্যবসায়ীরা। হকারদের মামলায় ১৯০ জন ব্যবসায়ী ও শ্রমিককে গতকাল সন্ধ্যায় আদালতে হাজির করে পুলিশ। পরে তাঁদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত। আদালত পুলিশের সাধারণ নিবন্ধন শাখার উপপরিদর্শক (এসআই) জালাল উদ্দিন এসব তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
গুলিস্তান ট্রেড সেন্টারের বারান্দা ও সামনের ফুটপাতে পসরা সাজিয়ে হকারদের বসা নিয়ে পরপর দুদিন সংঘর্ষ হলো। দোকানমালিকদের দাবি, ট্রেড সেন্টারের সামনে হকাররা বসার কারণে সেখানে ক্রেতাদের আসা-যাওয়ায় সমস্যা হয়। মার্কেটের পরিবেশও নষ্ট হয়। এ কারণে হকারদের বসতে দেওয়ার পক্ষে নন তাঁরা। কিন্তু হকাররা ছোট পরিসরে হলেও সেখানে পসরা নিয়ে বসার দাবি জানান।
প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ সূত্র বলেছে, বৃহস্পতিবারের ঘটনা নিয়ে গতকাল বেলা ১১টার দিকে ট্রেড সেন্টারে দোকানমালিক ও হকারদের সঙ্গে আলোচনা চলছিল। আলোচনার একপর্যায়ে হকাররা সেন্টারের একজন দোকানমালিককে মারধর করে বের হয়ে যান। এরপর দোকানমালিকেরা সেন্টারের সব কটি ফটক বন্ধ করে দেন। তাঁরা বাইরে সড়কে থাকা হকারদের দিকে ইটের টুকরা ছুড়তে থাকেন। হকাররাও ট্রেড সেন্টারের দিকে ইট ছুড়ে মারেন। দুই পক্ষের সংঘর্ষের সময় ট্রেড সেন্টারের সামনের সড়কসহ আশপাশের সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ জলকামান ও টিয়ার গ্যাস ব্যবহার করে। এ সময় হকাররা ট্রেড সেন্টারের দক্ষিণ পাশে দুটি স্থানে তাঁদের ব্যবহৃত ভাঙাচোরা আসবাবে আগুন ধরিয়ে দেন। লাঠিসোঁটা হাতে বিক্ষোভ করেন। পুরো এলাকা টিয়ার গ্যাসের ধোঁয়া ছড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষ চলাকালে অন্তত ২৫ জন আহত হন। বেলা দুইটার দিকে পুলিশ ঢাকা ট্রেড সেন্টারে অভিযান চালিয়ে দুই শতাধিক শ্রমিক ও দোকানিকে আটক করে পল্টন থানায় নিয়ে যায়।
সংঘর্ষের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসেন ঢাকা মহানগর পুলিশ (ডিএমপি) কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া। তিনি সাংবাদিকদের বলেন, গুলিস্তান এলাকার ফুটপাত উচ্ছেদ করতে একাধিকবার উচ্ছেদ অভিযান চালিয়েছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) ও ডিএমপি। জনগুরুত্বপূর্ণ এই এলাকায় ফুটপাতে দোকানপাট থাকতে পারবে না। কিন্তু যারা এই সংঘর্ষ করেছে, তাদের কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। আইন অনুযায়ী তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
বেলা আড়াইটার দিকে সরেজমিনে দেখা যায়, ঢাকা ট্রেড সেন্টারের দক্ষিণ পাশে সড়কের ফুটপাতে ছড়িয়ে আছে হকারদের আসবাব। ট্রেড সেন্টারের সব কটি ফটক বন্ধ। ভেতরে অভিযান চালিয়ে দোকানি ও শ্রমিকদের আটক করছে পুলিশ। দোকানিদের ধরতে পুলিশকে সহযোগিতা করছেন হকাররা। কিন্তু কোনো হকারকে আটক করতে দেখা যায়নি। বাতাসে টিয়ার গ্যাসের উৎকট গন্ধ ছড়িয়ে আছে। যান চলাচলও বন্ধ। এতে চরম দুর্ভোগে পড়েছেন পথচারীরা।
পল্টন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোর্শেদ আলম বলেন, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে পুলিশ জলকামান ও টিয়ার গ্যাস নিক্ষেপ করেছে। এ সময় মাথায় ইটের টুকরার আঘাত লেগে মতিঝিল বিভাগের উপকমিশনার (ডিসি) আনোয়ার হোসেন আহত হন। তাঁকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়।
ট্রেড সেন্টারে অভিযান চলাকালে পুলিশের মতিঝিল বিভাগের সহকারী কমিশনার এহসানুল ফেরদৌস বলেন, দেড় শতাধিক জনকে আটক করা হয়েছে। যাচাই-বাছাই করে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।
পুলিশের মতিঝিল বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার তারেক বিন রশিদ প্রথম আলোকে বলেন, সন্ধ্যায় ব্যবসায়ী-হকারদের মধ্যে সমঝোতা হয়েছে৷ আজ শনিবার যথারীতি মার্কেট খোলা থাকবে৷ তবে পুলিশের ওপর হামলা ও সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে পল্টন থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে৷

Web design company Bangladesh

পুরাতন খবর

November 2017
SMTWTFS
« Oct  
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930 

Related News

ইউটিউব, ফেসবুক কি শক্তের ভক্ত?

সরাসরি সম্প্রচারের যুগে বিতর্কিত ভিডিওর বিরুদ্ধে ফেসবুক-ইউটিউব এত দিন মুখ বুজে ছিল। জঙ্গি, উগ্রবাদ, সহিংসতার ...

বিস্তারিত

ধুয়ে-মুছে সব করে নিন সাফ

মনিটরঈদের ছুটির চেকলিস্টে মুভি দেখাটা থাকেই। টিভির তুলনায় এখন কম্পিউটার মনিটরে সিনেমা দেখা হয় ...

বিস্তারিত

রাজধানীতে বাড়ছে অপহরণ আতঙ্ক

গত বৃহস্পতিবার রাজধানীর কাকরাইল এলাকা থেকে অফিসের কাজ শেষে রাত ১১ টার দিকে বাসায় ফিরছিলেন জনাব মানসুর আলী নামের ...

বিস্তারিত

‘জঙ্গি আস্তানায়’ পড়ে আছে ৫ লাশ

রাজশাহীর গোদাগাড়ীর হাবাসপুরের ‘জঙ্গি আস্তানায়’ পাঁচজনের লাশ পড়ে আছে। ঘটনাস্থল ঘুরে এসে আজ বৃহস্পতিবার ...

বিস্তারিত